,
প্রচ্ছদ | জাতীয় | আন্তর্জাতিক | সারাদেশ | রাজনীতি | বিনোদন | খেলাধুলা | ফিচার | অপরাধ | অর্থনীতি | ধর্ম | তথ্য প্রযুক্তি | লাইফ স্টাইল | শিক্ষাঙ্গন | স্বাস্থ্য | নারী ও শিশু | সাক্ষাতকার

ঢাকায় লকডাউন: যানবাহনে ভাড়া নেওয়া হচ্ছে দশ গুণ

স্টাফ রিপোর্টার:

ঢাকার সঙ্গে বন্ধ রয়েছে সারা দেশের দূরপাল্লার বাস, ট্রেন ও লঞ্চ চলাচল। সেই সঙ্গে লকডাউন চলছে ঢাকার আশপাশের ৭ জেলায়। তবে, ছোট ছোট যানবাহনে পাঁচ থেকে দশ গুণ বেশি ভাড়া দিয়ে রাজধানীতে প্রবেশ এবং বের হচ্ছেন সাধারণ মানুষ। আবার কেউবা আবার হেঁটে ছুটছেন গন্তব্যে। তবে সুযোগ বুঝে ভাড়া বাড়িয়েছে পাঁচ থেকে দশ গুণ বেশি।

করোনার ভারতীয় ভ্যারিয়েন্টে বিপর্যস্ত দেশের সীমান্তবর্তী জেলাগুলো। প্রতিদিনই ওইসব এলাকায় বাড়ছে করোনায় সংক্রমণ ও মৃত্যু। করোনার লাগাম টানতে মঙ্গলবার (২২ জুন) সকাল থেকে সারাদেশ থেকে বিচ্ছিন্ন হয় রাজধানী। ঢাকার আশপাশে ৭টি জেলায় চলছে কঠোর লকডাউন। যার প্রভাব পড়েছে ঢাকার প্রবেশমুখগুলোতে।

আইইডিসিআরের প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ডা. এ এসএম আলমগীর বলেন, যত বেশি ট্রান্সমিশনে ভাইরাস থাকবে তত বেশি রূপ বদলাবে। যে কোনো লকডাউনের মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে ট্রান্সমিশন সাইকেলটাকে ব্রেক করা। এটার চেষ্টা করা হচ্ছে বিভিন্ন জায়গাতে। আর এটা অন্যতম পন্থা।

বুধবার (২৩ জুন) সকাল থেকে বিভিন্ন প্রবেশদ্বারে চেকপোস্ট বসিয়ে তল্লশি চালাচ্ছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। জরুরি সেবা, পণ্যবাহী ট্রাক ও লরি ছাড়া দূরপাল্লার কোনো পরিবহন চলাচল করছে না। যদিও হেঁটেই গন্তব্যের উদ্দেশে রওনা দেয় বহু মানুষ। ভেঙে ভেঙে অনেককেই ঢাকায় প্রবেশ ও বের হতে দেখা গেছে। সাধারণ মানুষ বলছেন, অফিস ও জরুরি কাজ থাকায় তাদের কষ্ট করেই গন্তব্যে ছুটতে হচ্ছে।

দূরপাল্লার বাস বন্ধ থাকায় সুযোগ নিয়েছে বিভিন্ন ছোট যানবাহন। রিকশা, ভ্যানসহ, মৌখিক চুক্তিতে চলছে বিভিন্ন মোটরসাইকেল। এ ক্ষেত্রে সুযোগ বুঝে ভাড়া হাতানো হচ্ছে পাঁচ থেকে দশ গুণ বেশি।

নারায়ণগঞ্জ:
করোনার লাগাম টানতে নারায়ণগঞ্জে লকডাউন বাস্তবায়নে তৎপর রয়েছে প্রশাসন। শহরের বিভিন্ন সড়ক-মহাসড়কে ৩০টি চেকপোস্ট বসানো হয়েছে। তৎপর রয়েছে জেলা প্রশাসনের ১৮টি ভ্রাম্যমাণ আদালত। তারপরও সাধারণ মানুষের মাঝে বিধিনিষেধ মানার ক্ষেত্রে উদাসীনতা চোখে পড়েছে।

টাঙ্গাইল:
এদিকে দূরপাল্লার বাস বন্ধের নির্দেশনা উপেক্ষা করেই ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে উত্তরবঙ্গসহ বিভিন্ন জেলার গণপরিবহন চলতে দেখা গেছে। এ ক্ষেত্রে বেশির ভাগ যাত্রীকেই স্বাস্থ্যবিধি মানতে দেখা যায়নি।

মুন্সিগঞ্জ:
লঞ্চ চলাচল বন্ধ থাকায় শিমুলিয়া-বাংলাবাজার ফেরিঘাটে জরুরি পণ্যবাহী ফেরি দিয়েই গাদাগাদি করে গন্তব্যের উদ্দেশে ছুটছে মানুষ। মানা হচ্ছে না স্বাস্থ্যবিধি।

এদিকে ডেলটা বা ভারতীয় ভ্যারিয়েন্টের প্রভাব পড়তে শুরু করেছে রাজধানীর হাসপাতালগুলোতেও। সীমান্ত এলাকায় দাপিয়ে বেড়িয়ে ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট এখন দখল নিচ্ছে গোটা দেশে।

এর প্রভাবে রাজশাহী, খুলনার পরে এবার চোখ রাঙাচ্ছে রাজধানীর দিকে। দুই সপ্তাহে আগেই যেখানে ঢাকা মেডিকেলে দশ থেকে বিশজন কোভিড রোগী আসত। চলতি স‌প্তাহে সেই সংখ্যা ৩০ থেকে ৩৫ দাঁড়িয়েছে। চাপ বাড়ছে রাজধানীর অন্যান্য কোভিড হাসপাতালেও।

Leave a Reply

প্রধান সম্পাদক : তোফায়েল হোসেন তোফাসানি
বার্তা সম্পাদক : রোমানা রুমি, সম্পাদকীয়, বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: সি-৫/১, (৪র্থ তলা) ছায়াবীথি, সাভার, ঢাকা-১৩৪০
ফোন ও ফ্যাক্স : ০২-৭৭৪১৯৭১, মোবাইল ফোন : ০১৭১১০৭০৯৩১
ই-মেইল : cninewsdesk24@gmail.com, cninews10@gmail.com
ঢাকা অফিস : বিএনএস সেন্টার (৯তলা), প্লট-৮৭, সেক্টর-০৭, উত্তরা, ঢাকা-১২৩০
Design & Developed BY PopularITLimited