,
প্রচ্ছদ | জাতীয় | আন্তর্জাতিক | সারাদেশ | রাজনীতি | বিনোদন | খেলাধুলা | ফিচার | অপরাধ | অর্থনীতি | ধর্ম | তথ্য প্রযুক্তি | লাইফ স্টাইল | শিক্ষাঙ্গন | স্বাস্থ্য | নারী ও শিশু | সাক্ষাতকার

কেশবপুরে শ্বশুরের কু-প্রস্তাব, পূত্রবধূর সংবাদ সম্মেলন

কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি:

যশোরের কেশবপুরে কু-প্রস্তাবে রাজী না হওয়ায় মারপিট-সহ অর্থ আতœসাতের অভিযোগে এক পূত্রবধূ তার শ্বশুরের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন করেছে। তাছাড়া সুবিচার ও টাকা ফেরত পাওয়ার জন্য উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নিকট লিখিত অভিযোগও করেছেন। কেশবপুর উপজেলা প্রেসক্লাবে মঙ্গলবার সকালে সংবাদ সম্মেলনে লিখিত পাঠকালে উপজেলার কাস্তা গ্রামের বুলবুল আহম্মেদের স্ত্রী রোজিনা খাতুন বলেন, অর্থ উপার্জনের জন্য তার স্বামী বুলবুল আহম্মেদ শ্রমিক ভিসা নিয়ে তাকে ও তার দুই শিশুপূত্রকে বাড়িতে রেখে ৪ বছর পূর্বে মালয়েশিয়াতে চলে যান। তার স্বামী বুলবুল আহম্মেদ আমার চাচাতো দেবর কাস্তা গ্রামের মেহেদী হাসান, তার বন্ধু তরিকুল ইসলাম, ইদ্রীস আলী ও রাজু আহম্মেদ এবং বাঁশবাড়িয়া গ্রামের আব্দুল হাইয়ের মাধ্যমে ফেরত দেওয়ার শর্তে তার পিতা রিয়াজউদ্দীন শেখের নিকট বিভিন্ন সময় ৬ লাখ ১২ হাজার টাকা প্রদান করেন। দীর্ঘদিন উক্ত টাকা ফেরত না দেওয়ায় আমি আমার শ্বশুর রিয়াজউদ্দীন শেখকে জোরালো চাঁপ দিতে থাকি। তখন আমার শ্বশুর তার সাথে আমার শারীরিক সম্পর্ক করলে উক্ত ৬ লাখ ১২ হাজার টাকা ফেরত দিবে বলে জানায়। আমি কু-প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় আমার শ্বশুর আমাকে লাঠিপেটা করে বাড়ি থেকে বের করে দেয় এবং টাকা ফেরত দিবেনা বলে জানিয়ে দেয়। তখন আমি স্থানীয় ইউপি সদস্য আজগর আলী দফাদারের নিকট বিচার দাবী করি। ইউপি সদস্য আজগর আলী দফাদার গ্রামের গন্যমান্য ব্যক্তিদের উপস্থিতিতে এক সালিশ-বৈঠকের আয়োজন করেন। সালিশে আমার শ্বশুর রিয়াজউদ্দীন শেখ টাকা ফেরত দেওয়ার জন্য সম্মতি জ্ঞাপন করেন। ইউপি সদস্য আজগর আলী দফাদার টাকা ফেরত দেওয়ার জন্য আমার শ্বশুর রিয়াজউদ্দীন শেখকে ১ সপ্তাহ সময় বেধে দেন। কিন্তু ৩ সপ্তাহ অতিবাহিত হওয়ার পরও টাকা ফেরত দেয়নি। বর্তমানে আমি আমার দুই শিশুপূত্রকে নিয়ে পথে পথে ঘুরছি। নিরুপায় হয়ে আমার স্বামীর সাথে পরামর্শ করে সুবিচার ও টাকা ফেরত পাওয়ার জন্য আমার শ্বশুর রিয়াজউদ্দীন শেখের বিরুদ্ধে গতকাল উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নিকট একটি লিখিত অভিযোগ করি। সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে গৃহবধূ রোজিনা খাতুন তার শ্বশুর রিয়াজউদ্দীন শেখের নিকট থেকে ৬ লাখ ১২ হাজার টাকা উদ্ধার ও সুবিচারের জন্য জরুরী ভিত্তিতে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন। ইমেইলে কেশবপুরে ষষ্ঠ দিনের ন্যায় ধান কেটে কৃষকের সহযোগিতা করলেন বিদ্যানন্দকাটি ইউনিয়ন ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা কেশবপুর (যশোর) থেকে ॥ প্রধানমন্ত্রী দেশরতœ শেখ হাসিনার আহ্বানে যশোর-৬ কেশবপুর সংসদীয় আসনে উপ-নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী ও যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদারের পক্ষে এবং যশোরে জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি রওশন ইকবাল শাহী ও কেশবপুর উপজেলা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক কাজী আজাহারুল ইসলাম মানিকের অনুপ্রেরণায় কেশবপুর উপজেলার বিদ্যানন্দকাটি ইউনিয়ন ছাত্রলীগের নেতৃবৃন্দ ষষ্ঠ দিনের ন্যায় মঙ্গলবার কৃষকের ২ বিঘা জমিতে ধান কেটে সহযোগিতা করছেন। উপজেলার পরচক্রা গ্রামের মতিয়ার মোড়ল জানান, করোনা ভাইরাসের কারণে ধানকাটা শ্রমিক সংকট দেখা নিয়েছে। ক্ষেতের পাঁকা ধান কাটা নিয়ে তিনি চিন্তিত ছিলেন। বিষয়টি অবগত হয়ে বিদ্যানন্দকাটি ইউনিয়ন ছাত্রলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক মুন্নাফ হোসেন মুন্নার নেতৃত্বে ছাত্রলীগনেতা রাব্বি, রিয়াদ, সজীব, রায়হান, রিপন, সোহাগ, রাসেল, সাগর, কৌশিক, ফারুক, আলতাপ, জাহাতাপ, শাহীন, মহিবুল্লাহ, হাবিবুল্লাহ, শহীদ, তুহিন, বাদশা, হালিম, হাকিম, হাসান, হোসেন, আল আমিন, রিপন -সহ বিদ্যানন্দকাটি ইউনিয়ন ছাত্রলীগের অর্ধশত নেতৃবৃন্দ গতকাল তাঁর ২বিঘা জমির ধান কেটে আমাকে সহযোগিতা করেছেন। এব্যাপারে বিদ্যানন্দকাটি ইউনিয়ন ছাত্রলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক মুন্নাফ হোসেন মুন্না জানান, প্রধানমন্ত্রী দেশরতœ শেখ হাসিনার আহ্বানে তাঁর নেতৃত্বে বিদ্যানন্দকাটি ইউনিয়ন ছাত্রলীগের নেতৃবৃন্দ কৃষকের পাশে দাঁড়িয়েছে। তাছাড়া দেশের যে কোন সংকটে ছাত্রলীগ দেশবাসির পাশে আছে, থাকবে। ইমেইলে কেশবপুরে জাতীয় পুষ্টি সপ্তাহে পুষ্টিকর খাদ্য সামগ্রী বিতরন কেশবপুর (যশোর) থেকে ॥ যশোরের কেশবপুর উপজে

Leave a Reply

VIDEO_EDITING_AD_CNI_NEWS
প্রধান সম্পাদক : তোফায়েল হোসেন তোফাসানি
বার্তা সম্পাদক : রোমানা রুমি, ৫৭, সুলতান মার্কেট (তয় তলা), দক্ষিনখান, উত্তরা, ঢাকা।
ফোন ও ফ্যাক্স : ০২-৭৭৪১৯৭১, মোবাইল ফোন : ০১৭১১০৭০৯৩১
ই-মেইল : cninewsdesk24@gmail.com, cninews10@gmail.com
আঞ্চলিক অফিস : সি-১১/১৪, আমতলা মোড়, ছায়াবিথি, সোবহানবাগ, সাভার, ঢাকা।
Design & Developed BY PopularITLimited