,
প্রচ্ছদ | জাতীয় | আন্তর্জাতিক | সারাদেশ | রাজনীতি | বিনোদন | খেলাধুলা | ফিচার | অপরাধ | অর্থনীতি | ধর্ম | তথ্য প্রযুক্তি | লাইফ স্টাইল | শিক্ষাঙ্গন | স্বাস্থ্য | নারী ও শিশু | সাক্ষাতকার

জাবিতে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীকে লাঞ্ছিত করলেন ছাত্রলীগ নেতা

সাব্বির হোসেন :
জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে চলমান উন্নয়ন প্রকল্পে দুর্নীতির অভিযোগের বিচার বিভাগীয় তদন্তসহ তিনদফা দাবিতে গড়ে ওঠা আন্দোলনে অংশ নেওয়া এক শিক্ষার্থীকে লাঞ্ছিত করেছেন ছাত্রলীগের এক নেতা। আজ শনিবার সকাল সাড়ে নয়টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের রফিক জব্বার হলের সামনে এ ঘটনা ঘটে।
মারধরের শিকার শিক্ষার্থী হলেন সাইমুম ইসলাম। তিনি পরিবেশ বিজ্ঞান বিভাগের ৪৪ তম ব্যাচের শিক্ষার্থী ও আ ফ ম কামালউদ্দিন হলের আবাসিক ছাত্র। তিনি ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগর’-এর সংগঠক ও জাহাঙ্গীরনগর থিয়েটারের সাধারণ সম্পাদক।
অভিযুক্ত অভিষেক মন্ডল শাখা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক। তিনি দেড় বছর আগে বিশ্ববিদ্যালয়ের সরকার ও রাজনীতি বিভাগ থেকে ¯œাতকোত্তর সম্পন্ন করেছেন। তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ রফিক জব্বার হলে থাকেন।
লাঞ্ছনার শিকার সাইমুম ইসলাম বলেন, ‘আমি প্রশাসনের লিখিত অভিযোগ দিয়েছি। আমি এটার যথাযথ শাস্তি চাই। সে একজন বহিরাগত ছাত্র হয়ে কিভাবে হলে থাকে এবং নিয়মিত ছাত্রকে মারধর করে তা প্রশাসনের কাছে জানতে চাই।’
অভিযুক্ত অভিষেক মন্ডলের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন,‘ ঘটনায় আমিও আহত হয়েছি। এখানে সাইমুমের আচরণ খুব উদ্ধত আচরণ করায় এমন ঘটনা ঘটেছে।’
হলের প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক সোহেল আহমেদ বলেন, ‘এটি একটি বিচ্ছিন্ন এবং ছোট ঘটনা। আমরা এটা সামাজিকভাবে সমঝোতা করার চেষ্টা করছি।’
প্রত্যক্ষদর্শী কয়েকজন শিক্ষার্থী বলেন, সকাল সাড়ে নয়টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের রফিক জব্বার হল সংলগ্ন একটি খাবার দোকানে নাস্তা করতে যান সাইমুম। একই সময়ে সেখানে অভিষেক মন্ডলসহ চার শিক্ষার্থী নাস্তা করছিলেন। সাইমুম মোবাইল ফোনে কথা বললে অভিষেক তাকে ফোনে জোরে কথা না বলতে নিষেধ করেন। পরে সাইমুম পরিচয় দিতে গিয়ে জাহাঙ্গীরনগর থিয়েটারের সাধারণ সম্পাদক পরিচয় দিলে খেপে যায় অভিষেক। কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে কলার ধরে সাইমুমকে দোকানের বাইরে নিয়ে আসে অভিষেক। পরে তাকে লাকড়ি দিয়ে প্রহার করে অভিষেক। ঘটনার প্রতিক্রিয়ায় জাহাঙ্গীরনগর সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি আশিকুর রহমান কথা বলতে গেলে তার সাথেও উচ্চবাচ্য করেন অভিষেক মন্ডল।
এদিকে এই ঘটনার খবর আসলে আন্দোলনকারী ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগর’ ব্যানারের নেতাকর্মীদের সাথে প্রশাসনের পুর্বনির্ধারিত বৈঠক স্থগিত হয়ে যায়।
আন্দোলনকারীদের সাথে উপাচার্য অধ্যাপক ডা. ফারজানা ইসলামের এই ঘটনার প্রেক্ষিতে কথা বলতে আসেন। তখন তারা এই ঘটনার সুষ্ঠু বিচার না হওয়া আগ পর্যন্ত আলোচনায় বসবে না বলে ঘোষণা দেন।
এদিকে সাইমুমের উপর হামলার প্রতিবাদে তাৎক্ষনিক বিক্ষোভ মিছিল করেছে ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগর’ ব্যানারের আন্দোলনকারীরা।
উদ্ভূত পরিস্থিতিতে উপাচার্য অধ্যাপক ডা. ফারজানা ইসলাম উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক আমির হোসেন, উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক নুরুল আলম ও ট্রেজারার অধ্যাপক মনজুরুল হকের সাথে জরুরী বৈঠকে বসেছেন। বৈঠক শেষে ‘কঠোর’ ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দেন উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক আমির হোসেন।
তবে সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ দিদার বলেন,‘ছাত্রলীগের সন্ত্রাসের শাস্তির ব্যাপারে কোন আশ্বাসে কাজ হবে না। তার সম্পর্কে সিদ্ধান্ত দিলেই কেবল আমরা আলোচনায় বসব। যেহেতু সে অবৈধ ছাত্র তাকে হল থেকে বের করতে হবে এবং পুলিশের কাছে সোপার্দ করতে হবে।
উল্লেখ্য এর আগে বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের ৪৮তম ব্যাচের শিক্ষার্থী ও আল বেরুনী হলের আবাসিক ছাত্র সোহায়েব ইবনে মাসুদকে মঙ্গলবার মশাল মিছিল আসায় শেষ হলে ফিরে গেলে তিনিও এক ছাত্রলীগ কর্মীর হাতে নির্যাতনের শিকার হন।
এদিকে শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত পুর্বনির্ধারিত আলোচনা স্থগিত রয়েছে।

শিক্ষার্থীকে মারধরের ঘটনায় অভিযুক্ত ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। আজ শনিবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান নিরাপত্তা কর্মকর্তা জাবি শাখা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অভিষেক মণ্ডলের বিরুদ্ধে আশুলিয়া থানায় এই অভিযোগ দায়ের করেন।

Leave a Reply

VIDEO_EDITING_AD_CNI_NEWS
প্রধান সম্পাদক : তোফায়েল হোসেন তোফাসানি
বার্তা সম্পাদক : রোমানা রুমি, ৫৭, সুলতান মার্কেট (তয় তলা), দক্ষিনখান, উত্তরা, ঢাকা।
ফোন ও ফ্যাক্স : ০২-৭৭৪১৯৭১, মোবাইল ফোন : ০১৭১১০৭০৯৩১
ই-মেইল : cninewsdesk24@gmail.com, cninews10@gmail.com
আঞ্চলিক অফিস : সি-১১/১৪, আমতলা মোড়, ছায়াবিথি, সোবহানবাগ, সাভার, ঢাকা।
Design & Developed BY PopularITLimited