,
প্রচ্ছদ | জাতীয় | আন্তর্জাতিক | সারাদেশ | রাজনীতি | বিনোদন | খেলাধুলা | ফিচার | অপরাধ | অর্থনীতি | ধর্ম | তথ্য প্রযুক্তি | লাইফ স্টাইল | শিক্ষাঙ্গন | স্বাস্থ্য | নারী ও শিশু | সাক্ষাতকার

শিক্ষকের সঙে প্রেমে বিয়ে দাবীতে অনশনে

গাইবান্ধা প্রতিনিধি : গাইবান্ধা জেলার পলাশবাড়ীতে শিক্ষকের সঙে প্রেম বিয়ের জন্য অনশন শুর।
১৭ই জুন সোমবার উপজেলার কয়ারপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক আনিছুর রহমানের প্রেমের শেষ পরিনতি বিয়ের দাবীতে অনশন।
শিক্ষক প্রেমিকের বাড়ী উপজেলার মহদীপুর ইউনিয়ানের জালাগাড়ী গ্রামের হাসান আলীর ছেলে আনিছুর রহমান।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘদিন যাবত প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলেন প্রেমিক যুগোল সময়ের ব্যাবধানে প্রেমটা  শাররিক সম্পর্কে জিড়িয়ে পড়ে। 
 ১৬ জুন সন্ধ্যায় পলাশবাড়ী উপজেলার মহদীপুর গ্রামের জালাগাড়ী গ্রামে প্রতারক প্রেমিক শিক্ষক আনিছুর রহমানের বাড়ীতে বিয়ের দাবী নিয়ে অনশন করছে।
এসময় অভিযুক্ত প্রতারক প্রেমিক শিক্ষক আনিছুর রহমান বাড়ী হতে পালিয়ে অন্যত্র চলে যাওয়ায়।
আনিছুর রহমানের পরিবার ওই কিশোরীকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে ও ব্যবহৃত মোবাইল কেড়ে নিয়ে বাড়ী হতে বেড় করে দেয়। এতো লাঞ্চণা গঞ্জনার পরে নিজের দাবী অনড় যুবতি অনশনে রয়েছেন। 
 সে কয়ারপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক পদে চাকুরি করেন। 
এবিষয়ে প্রতারণার স্বীকার অনশনরত  যুবতি জানান,দীর্ঘ তিন বছর হলো আনিছুর বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে আমার সহিত শাররিক সম্পর্ক গড়ে তুলে। এরপর আমি বিয়ের জন্য চাপ দিলে সে আমার সহিত সকল প্রকার যোগাযোগ বন্ধ করে দিয়ে গা ঢাকা দিয়েছে। এ কারণে আজ বিয়ের দাবী নিয়ে আনিছুরের বাড়ীতে এসেছি। হয় আনিছুরের সাথে আমার বিয়ে হবে নয়তো বা তার বাড়ীতে আমার মৃত্যু হবে।
 লম্পট আনিছুর রহমান গা ঢাকা দেওয়ার তার মন্তব্য নেওয়া সম্ভাব হয়নি। 
প্রেম প্রতারণার স্বীকার ভুক্তভোগী যুবতি মা জানান,আমার কন্যা কে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে আনিছুর শাররিক সম্পর্ক গড়ে এবং বিয়ের কথা বলে বাড়ীতে ডেকে এনে আনিছুর গা ঢাকা দেয়। এরপর আমার কন্যা আনিছুরের বাড়ীতে বিয়ের দাবী নিয়ে অনশন করে। আমরা আমাদের কন্যা কে ফিরিয়ে আনতে গেলে আমার কন্যা জানায় আমার জীবন শেষ করবো নয়তো বা আনিছুর কে বিয়ে করে ঘর সংসার করবো। 
পরে এবিষয়ে পলাশবাড়ী থানায় অভিযোগ করতে গেলে এ বিষয়ে থানা পুলিশ অভিযোগ গ্রহনে অস্বীকৃতি জানায়। আমরা পারিবারিকভাবে ব্যাপক অশান্তিতে রয়েছি। 
এ বিষয়ে থানা অফিসার ইনচার্জ মাসুদুর রহমান জানান,এঘটনায় অভিযোগ পাইনি। তবে অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Leave a Reply

VIDEO_EDITING_AD_CNI_NEWS
প্রধান সম্পাদক : তোফায়েল হোসেন তোফাসানি
বার্তা সম্পাদক : রোমানা রুমি, ৫৭, সুলতান মার্কেট (তয় তলা), দক্ষিনখান, উত্তরা, ঢাকা।
ফোন ও ফ্যাক্স : ০২-৭৭৪১৯৭১, মোবাইল ফোন : ০১৭১১০৭০৯৩১
ই-মেইল : cninewsdesk24@gmail.com, cninews10@gmail.com
আঞ্চলিক অফিস : সি-১১/১৪, আমতলা মোড়, ছায়াবিথি, সোবহানবাগ, সাভার, ঢাকা।
Design & Developed BY PopularITLimited