,
প্রচ্ছদ | জাতীয় | আন্তর্জাতিক | সারাদেশ | রাজনীতি | বিনোদন | খেলাধুলা | ফিচার | অপরাধ | অর্থনীতি | ধর্ম | তথ্য প্রযুক্তি | লাইফ স্টাইল | শিক্ষাঙ্গন | স্বাস্থ্য | নারী ও শিশু | সাক্ষাতকার

চব্বিশটি সাপের সঙ্গে প্রেম তুলসী দাসের!

tulsi-dasতোফাসানি: গল্পটি কোন সিনেমা বা নাটকের নয়। আশ্চর্য্য হলেও এটাই সত্যি যে, সাপের সঙ্গে তুলসী দাস (২৮) নামে এক নারীর প্রেম হয়েছে। তাও একটি দু’টি নয়, চব্বিশটি বিষধর সাপের অভিভাবক এই তুলসী। যাদের সে লালন-পালন করে বড় করে তুলেছে। এই প্রতিবেদকের কাছে ধরা পরলো এমনি একটি ঘটনা।
শিল্পনগরী সাভারের রাস্তায় বিশাল দু’টি সাপ গলায় নিয়ে তাদের খাবারের জন্য টাকা চাইছিলেন তুলসী দাস। তার সাথে আলাপ করে জানাগেছে, মুন্সিগঞ্জ জেলার শেখেরনগর গ্রামের গোপাল দাসের মেয়ে সে। ২০-২২ বছর বয়স থেকে তুলসী দাড়াইজ প্রজাতির সাপ লালন-পালন করে আসছে। এখন তার সাপের সংখ্যা চব্বিশটি। এরমধ্যে বারটি পুরুষ এবং বারটি নারী সাপ রয়েছে। প্রতিটি সাপ কমপক্ষে সাত থেকে আট হাত লম্বা। এই প্রজাতির সাপের বিষ থাকে লেজের মধ্যে। অনেক সময় দাড়াইজ সাপের কামড়ে মানুষ মারা যায়। সাপের বিষ দাঁত ভেঙ্গে নিজের সন্তানের মত পালন করে আসছে এই নারী। সাপের সাথে তুলসীর এতই প্রেম যে, তাঁর সব কথা সাপেরা বুঝতে পারে এবং মেনেও চলে।
তুলসী আরো জানায়, দেশের বিভিন্ন মন্দিরে মন্দিরে সে ঘুরে বেড়ায়। সাথে তাঁর সঙ্গী এই সাপগুলো। মানুষের দ্বারে দ্বারে গিয়ে হাত পেতে যা পায় তাই দিয়ে চলে সাপের খাবার আর তুলসীর পেটের আহার। চব্বিশ ঘন্টাই তুলসীর গায়ের উপর সাপগুলো চষে বেড়ায় আপন জনের মত। রাতে সাপ নিয়ে ঘুমাতে অভ্যস্ত হয়ে পরেছেন তুলসী। জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত পালিত সাপগুলোকে ভালবেসে মরতে আশা ব্যক্ত করেছেন এই সাহসী নারী।
বিরল এ ঘটনা দেখতে তুলসীর চারপাশে সব সময় ভীর লেগে থাকে উৎসুক মানুষের। অনেকে ভালবেসে তুলসীর হাতে তুলে দেয় সামান্য অর্থ। তুলসী আর সাপের মধ্যে যে প্রেম, তা পৃথিবীর অন্য কোন দেশে কখনও দেখা যায়নি বলে মন্তব্য করেন অভিজ্ঞ মহল। #

Leave a Reply

VIDEO_EDITING_AD_CNI_NEWS
প্রধান সম্পাদক : তোফায়েল হোসেন তোফাসানি
বার্তা সম্পাদক : রোমানা রুমি, ৫৭, সুলতান মার্কেট (তয় তলা), দক্ষিনখান, উত্তরা, ঢাকা।
ফোন ও ফ্যাক্স : ০২-৭৭৪১৯৭১, মোবাইল ফোন : ০১৭১১০৭০৯৩১
ই-মেইল : cninewsdesk24@gmail.com, cninews10@gmail.com
আঞ্চলিক অফিস : সি-১১/১৪, আমতলা মোড়, ছায়াবিথি, সোবহানবাগ, সাভার, ঢাকা।
Design & Developed BY PopularITLimited